শিক্ষা উপমন্ত্রী নওফেলকে ডিআরইউতে অবাঞ্ছিত ঘোষণা

শিক্ষা উপমন্ত্রী নওফেলকে ডিআরইউতে অবাঞ্ছিত ঘোষণা

মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে গ্রেফতারকৃত দৈনিক প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামকে হেনস্তার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে অবমাননাকর মন্তব্য করার কারণ দেখিয়ে শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলকে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২০ মে) বিকালে রোজিনা ইসলামকে নির্যাতন ও গ্রেফতারের ঘটনায় ডিআরইউর প্রতিবাদ সমাবেশে সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক মসিউর রহমান খান এ ঘোষণা দেন। তিনি জানান, বর্তমান কার্যনির্বাহী কমিটি দায়িত্বে থাকা অবস্থায় নওফেল ডিআরইউতে প্রবেশ করতে পারবেন না। আমরা ডিআরইউ প্রাঙ্গণে তাকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করছি। ডিআরইউর কোনো অনুষ্ঠানে তাকে অতিথি করা হবে না। তাকে অতিথি করলে ডিআরইউতে মিলনায়তন ভাড়া দেওয়া হবে না।
মশিউর রহমান খান বলেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে গণমাধ্যমের শত্রু হিসেবে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেয়ার বিষয়ে প্রয়াস অব্যাহত থাকবে। যদিও স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজেই নিজেকে গণমাধ্যমের শত্রু হিসেবে চিহ্নিত করেছেন।
ডিআরইউর সভাপতি মুরসালিন নোমানী নতুন কর্মসূচি ঘোষণা দিয়ে বলেন, সাংবাদিক রোজিনার মুক্তির দাবিতে কাল শুক্রবার সকাল ১০টায় ডিআরইউ প্রাঙ্গণে মুখে কালো কাপড় বেঁধে প্রতিবাদ সমাবেশ করা হবে। ধাপে ধাপে কর্মসূচি চলবে। রোজিনার মুক্তির আগ পর্যন্ত কোনোভাবেই আন্দোলন থামবে না।
এর আগে, গতকাল বুধবার বিকেলে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেইজ থেকে সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে সচিবালয়ে আটকে রাখার ৪০ সেকেন্ডের একটি ভিডিও পোস্ট করেন শিক্ষা উপমন্ত্রী নওফেল। ওই ভিডিওর শিরোনামে লেখা ছিল, ‘ফাইল চুরির দায় স্বীকার প্রথম আলোর সাংবাদিক রোজিনার’। সেখানে নওফেল লেখেন, তথ্য অধিকার আইনের প্রয়োগ না করে, ন্যূনতম সাক্ষাৎকার চেয়ে, তথ্য না চেয়ে, বেআইনীভাবে সরকারী নথিপত্রের ছবি তুলে সংবাদ সৃষ্টি করা অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা নয়, পরিকল্পিতভাবে চমক সৃষ্টি করা।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন

সর্বশেষ খবর

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com