মানুষের মাংস খেলে সারবে রোগ! হত্যাকাণ্ডের তদন্তে মানুষখেকোর সন্ধান পেল পুলিশ

মানুষের মাংস খেলে সারবে রোগ! হত্যাকাণ্ডের তদন্তে মানুষখেকোর সন্ধান পেল পুলিশ

জেমস ডেভিড রাসেল। মানুষের মাংস খেলে ব্রেইনের রোগ সারবে এমন ধারণা থেকে খুন এবং ভুক্তভোগীর মাংস খাওয়ার অভিযোগ তার বিরুদ্ধে। ছবি: সংগৃহীত

মানুষের মাংস খেলে তার মাথার রোগ সারবে। এমন ধারণা থেকে মানুষ খুন করা শুরু করেছিল সে। তাই সত্তর বছর বয়সি এক বৃদ্ধকে খুন করে তার মাংস খেয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে তার বিরুদ্ধে। খুন এবং মানুষের মাংস খাওয়ার অভিযোগে সম্প্রতি জেমস ডেভিড রাসেল নামে ওই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যম নিউ ইয়র্ক পোস্ট এর প্রতিবেদনে বলা হয়, ঘটনাটি ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের ইদাহোরে। অভিযুক্ত ৩৯ বছর বয়সি ডেভিড রাসেল এখন পুলিশ হেফাজতে রয়েছে। তার বিচার প্রক্রিয়া চলছে। রাসেল আরও কাউকে খুন করেছে কি না তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।
পুলিশ জানিয়েছে, বছর সত্তরের ডেভিড ফ্ল্যাগেট নামে এক ব্যক্তি হঠাৎ নিখোঁজ হন। তদন্তে নেমে পুলিশ রাসেলের বাড়ির বাইরে একটি গাড়ি থেকে ডেভিডের দেহাবশেষ উদ্ধার করে। আদালতের প্রকাশিত নথি থেকে জানা যায়, উদ্ধার হওয়ার সময় ডেভিডের হাত পিছমোড়া করে ডাকটেপ দিয়ে বাঁধা ছিল। তার শরীরের বেশ কিছু অংশে মাংস ছিল না।
অভিযুক্ত রাসেলকে খুনের অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসে। তবে আইনজীবী তার বিরুদ্ধে মানুষের মাংস খাওয়ার অভিযোগ তোলেন গত সপ্তাহে। মূলত হত্যা মামলার রহস্য উদঘাটন করতে গিয়ে অভিযুক্ত রাসেলের মানুষের মাংস খাওয়ার বিষয়টি সামনে চলে আসে।
আরও পড়ুন– আইনগত বৈধতা ছাড়াই আট বছরের প্রেম পেলো পূর্ণতা
পুলিশ জানিয়েছে, রাসেলের প্রতি সন্দেহ হওয়ায় তার ঘরে তল্লাশি চালানো হয়। সেখান থেকে রক্তমাখা ছুরি, বেশ কয়েকটি পাত্র উদ্ধার হয়েছে। রাসেল আরও কাউকে খুন করেছেন কি না তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।
ওই মামলার পরবর্তী শুনানি ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। আদালত অভিযুক্ত রাসেল কে মানুষিক চিকিৎসার দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com