ভাসানচর থেকে পালাতে গিয়ে রোহিঙ্গা নারীর মৃত্যু

ভাসানচর থেকে পালাতে গিয়ে রোহিঙ্গা নারীর মৃত্যু

ছবি: সংগৃহীত।

নোয়াখালী প্রতিনিধি :
নোয়াখালীর ভাসানচর রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে দালালের মাধ্যমে কক্সবাজার পালাতে গিয়ে মেঘনা নদীর পাড়ে সেতারা বেগম নামের এক রোহিঙ্গা নারী অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন। একই সময়ে নিহত সেতারার মা নুর নাহারকে আটক করে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়।
রোববার (১৯ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় নিহত সেতারা বেগমের (৩০) মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহত সেতারা বেগম ভাসানচরের ৬৫ নম্বর ক্লাস্টারের ১০ নম্বর রুমের মৃত নুর মোহাম্মদের মেয়ে এবং আটক নুর নাহার একই ক্লাস্টারের নুর মোহাম্মদের স্ত্রী।
চর জব্বার থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম জানান, শনিবার ভোর রাতের দিকে ভাসানচর থেকে দালালের মাধ্যমে কক্সবাজার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পালিয়ে যেতে মাছ ধরার নৌকায় মেঘনা নদীতে পাড়ি জমায় মা নুর নাহার এবং মেয়ে সেতারা বেগম। সকালে দালালরা মা-মেয়েকে কক্সবাজার না নিয়ে সুবর্ণচর উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের মেঘনা নদী পাড়ে রেখে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা সেখান থেকে তাদের উদ্ধার করে। এসময় সেতারা বেগম অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে হাসপাতাল নেওয়ার পথে সে মারা যায়।
আরও পড়ুন- কক্সবাজারে সাগরে গোসল; অসুস্থ পর্যটকের হাসপাতালে মৃত্যু
পরিদর্শক (তদন্ত) আরও জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট প্রস্তুত করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। আটক নারীকে ভাসানচরে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com