বিনামূল্যে সাপ্তাহিক বাজার করলো পাঁচ শতাধিক পরিবার

বিনামূল্যে সাপ্তাহিক বাজার করলো পাঁচ শতাধিক পরিবার

করোনা মহামারি এবং সাম্প্রতিক সময়ে বৈরী আবহাওয়ায় বোরো ধান নষ্ট হওয়া ক্রয় সামর্থ্যহীন কৃষক পরিবারগুলোর পাশে দাঁড়াতে পবিত্র রমজান উপলক্ষে মাসব্যাপী ফ্রি-হাট কর্মসূচি নিয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন মুক্তির বন্ধন ফাউন্ডেশন।
করোনা সংক্রমণরোধে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ময়মনসিংহ জেলার ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার আঠারবাড়িতে ফ্রি-হাট এই কর্মসূচি পরিচালনা করা হয়। মফস্বল এলাকা হলেও করোনা সংক্রমণরোধে স্বাস্থ্যবিধি মানতে হাটের প্রবেশ পথে হাত জীবাণুমুক্ত করতে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও ইনফারেড থার্মোমিটার দিয়ে প্রত্যেকের তাপমাত্রা নির্ণয় করা হয়।
হাটের স্বেচ্ছাসেবী দোকানী ও ক্রেতাদের গ্লাভস ও মুখে মাস্ক ছিলো। প্রতিটি স্টল সাজানো হয় তিন ফুট দূরত্বে। থরে থরে সাজানো ছিল সরাসরি কৃষকের থেকে সংগৃহীত টাটকা সবজি, লাউ, টমেটো, কাঁচা মরিচ, মাছ, পেঁয়াজ, আলুসহ ইফতারের জন্য পবিত্র মদিনার খেজুর।

আয়োজকরা জানান, আজকের হাটে ৫০০ পরিবারের বিনামূল্যে কেনাকাটার জন্য ছিল প্রয়োজনীয় বাজার সদাই। গত ১৩ এপ্রিল অনুষ্ঠিত প্রথম হাটেও বিনামূল্যে পুরো এক সপ্তাহের প্রয়োজনীয় বাজার সদাই করেছিলেন ৫০০ পরিবার। এবারও এর ব্যত্যয় ঘটেনি।
ফ্রি-হাটে সলিহাটি গ্রামের ক্রেতা লোকমান মিয়া (৫৫) বলেন, সারাবছর ধারদেনা করে চলি। আমাদের একমাত্র অবলম্বন হলো বোরো ধান আবাদ। এ বছর করোনার মধ্যে আবার গরম বাতাসে সব ধান নষ্ট হওয়ায় পরিবার নিয়ে মহা চিন্তায় চোখে অন্ধকার দেখছি। রোজায় বাজার সদাই করি নাই। এই সংগঠনের মানুষেরা বাড়িতে বলে এসেছিলো, এখানে ফ্রি পুরা সপ্তাহের বাজার পাইয়া উপকৃত হইলাম। একটা সপ্তাহ এই নিয়ে রোজা রাখতে পারবো।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন

সর্বশেষ খবর

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com