ফাইল না আনায় পিটিয়ে দুই কর্মকর্তার হাত ভাঙলেন মন্ত্রী

ফাইল না আনায় পিটিয়ে দুই কর্মকর্তার হাত ভাঙলেন মন্ত্রী

ছবি: সংগৃহীত

নির্দিষ্ট ফাইল না আনায় দলীয় কার্যালয়ের ভেতরে চেয়ার দিয়ে মেরে দুই সরকারি কর্মকর্তার হাত ভেঙেছেন ভারতের কেন্দ্রীয় জলশক্তি এবং উপজাতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী বীরেশ্বর টুডু। প্রবল আলোচিত এ ঘটনায় ইতোমধ্যেই মন্ত্রীর বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ভুক্তভোগীরা। খবর এনডিটিভির।
শুক্রবার (২১ জানুয়ারি) বারিপদার দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক পর্যালোচনা বৈঠকে এ ঘটনা ঘটে।
এনডিটিভির খবরে বলা হয়, শুক্রবার বারিপদায় দলীয় কার্যালয়ে আয়োজিত একটি পর্যালোচনা বৈঠকে ডিস্ট্রিক্ট প্ল্যানিং অ্যান্ড মনিটরিং ইউনিট-এর যুগ্ম অধিকর্তা অশ্বিনী কুমার মল্লিক এবং সহঅধিকর্তা দেবাশিস মহাপাত্রকে কার্যালয়ে ডেকে পাঠান বীরেশ্বর। বৈঠকের সময় প্রয়োজনীয় ফাইল না পেয়ে রেগে ওঠেন তিনি। দুই কর্মকর্তার কাছে ফাইল না আনার কারণ জানতে চাওয়ার কিছুক্ষণ পরই কার্যালয়ের দরজা বন্ধ করে ওই দুই কর্মকর্তাকে মারধর করেন বীরেশ্বর।
এই ঘটনায় ওই দুই কর্মকর্তারই হাত ভেঙে যায়। আহত দুজনকেই চিকিৎসার জন্য বারিপদার পিআরএম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। ইতোমধ্যে দুই কর্মকর্তার অভিযোগের ভিত্তিতে মন্ত্রীর বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩২৩, ৩২৫, ২৯৪ এবং ৫০৬ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে।
এদিকে, সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন মন্ত্রী বীরেশ্বর। তিনি বলেন, কেন্দ্রীয় সরকারের পাঠানো টাকা কিভাবে খরচ করা হয়েছে তার ফাইল আনতে বলেছিলাম ওদের। কিন্তু ওরা এখন আমার বিরুদ্ধেই ভিত্তিহীন অভিযোগ তুলেছে। যদি মারতাম, তাহলে বাড়িতে ফেরা সম্ভব হতো না ওদের।/এসএইচ

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন

সর্বশেষ খবর

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com