দিলদারকে হারানোর ১৭ বছর

দিলদারকে হারানোর ১৭ বছর

বাংলা চলচ্চিত্রে নায়ক-নায়িকার বাইরেও সিনেমাতে কিছু চরিত্র থাকে যারা প্রতিমুহূর্তে দর্শকদের আনন্দ দেয়। পর্দায় যার উপস্থিতিতে দর্শকদের হাসির রোল পড়ে যেত। তিনি বাংলা চলচ্চিত্রের কিংবদন্তি কৌতুক অভিনেতা দিলদার।জীবদ্দশায় হাসির খোরাক যুগিয়েছেন তিনি। যা তাকে এনে দিয়েছিল তুমুল দর্শকপ্রিয়তা। ২০০৩ সালের ১৩ জুলাই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন দিলদার। মৃত্যুর ১৭ বছর পরও দর্শকপ্রিয়তা এতটুকু কমেনি।১৯৪৫ সালের ১৩ জানুয়ারি চাঁদপুরে জন্মগ্রহণ করেন দিলদার। এসএসসি পাস করার পর পড়াশোনা বাদ দেন এই অভিনয় শিল্পী। ১৯৭২ সালে ‘কেন এমন হয়’ নামে সিনেমার মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিনয় জীবন শুরু করেন। আর পেছনে ফিরে তাকাননি তিনি। অভিনয় করেছেন ‘বেদের মেয়ে জোসনা’ ‘বিক্ষোভ’, ‘অন্তরে অন্তরে’, ‘কন্যাদান’, ‘চাওয়া থেকে পাওয়া’, ‘সুন্দর আলীর জীবন সংসার’, ‘স্বপ্নের নায়ক’, ‘আনন্দ অশ্রু’, ‘শান্ত কেন মাস্তান’সহ অসংখ্য জনপ্রিয় সব চলচ্চিত্রে।দিলদারের তুমুল জনপ্রিয়তা দেখে পরিচালক তাকে নায়ক হিসেবে পর্দায় হাজির করেছিলেন। ‘আব্দুল্লাহ’ নামে এ সিনেমা দর্শকমহলে ব্যাপক সাড়া ফেলেছিল। কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ ‘তুমি শুধু আমার’ সিনেমার জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন দিলদার।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com