চীনের উসকানির জবাবে তাইওয়ানের সামরিক মহড়া

চীনের উসকানির জবাবে তাইওয়ানের সামরিক মহড়া

ছবি: সংগৃহীত

চীনের উসকানির জবাব দিতে নিজ ভূখণ্ডে সামরিক মহড়া চালাচ্ছে তাইওয়ান। প্রতিরক্ষা সূত্রের বরাত দিয়ে জানানো হয়, বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) চলবে শক্তিমত্তা প্রদর্শনী। খবর ডয়চে ভেলের।
পিংটাং কাউন্টির দক্ষিণাঞ্চলে বেশকিছু চালকবিহীন ড্রোন এবং হেলিকপ্টার অংশ নেয় তাইওয়ানের মহড়ায়। তাছাড়া, হাওয়াইটজার আর্টিলারি সিস্টেম থেকে সমুদ্রের দিকে ছোঁড়া হয় গোলাবারুদ। মূলত নির্দিষ্ট সময়সীমা শেষ হওয়ার পরও তাইওয়ানের চারপাশে চীন সামরিক মহড়া বৃদ্ধির ঘোষণা দেয়ায় নেয়া হলো এই উদ্যোগ। এদিকে, বুধবারও (১০ আগস্ট) তাইওয়ান প্রণালীতে পেশিশক্তি প্রদর্শন করছে চীনের অন্তত ২০টি যুদ্ধজাহাজ। পাশাপাশি, আকাশসীমায় টহল দিচ্ছে একঝাঁক ফাইটার জেট। রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে সম্প্রচারিত ভিডিওতে নতুন ধরনের রিফুয়েলিং বিমান দেখা গেছে।
প্রসঙ্গত, প্রসঙ্গত, চীনের কমিউনিস্ট পার্টি গণতান্ত্রিক তাইওয়ানকে বিবেচনা করে তার অঞ্চল হিসেবে। যদিও চীন কখনোই দেশটিকে নিয়ন্ত্রণ করেনি। মূল ভূখণ্ডের সাথে তাইওয়ানকে একত্রিত করা চীনা নীতির একটি ভিত্তি এবং প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং দ্বীপটিকে বেইজিংয়ের নিয়ন্ত্রণে আনার ব্যাপারে শক্তি প্রয়োগের কথা অস্বীকার করেননি। আর এবার, মার্কিন স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরের জেরে ৪ আগস্ট থেকে তাইওয়ানের চারপাশে সামরিক সক্ষমতা ঝালিয়ে নিচ্ছে চীন।
আরও পড়ুন: সামরিক মহড়ায় বেইজিং দেখালো, দখল না করেও তাইওয়ান নিয়ন্ত্রণে সক্ষম চীন
/এম ই

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com