কুড়িগ্রামে প্রতিবেশির গাছের আম ছেঁড়ায় শিশুকে নির্যাতন

কুড়িগ্রামে প্রতিবেশির গাছের আম ছেঁড়ায় শিশুকে নির্যাতন

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি:কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলায় প্রতিবেশির গাছের আম ছেড়ায় ৭ বছরের শিশু আবু হাসানকে নির্যাতন করার অভিযােগ উঠেছে। ৩০ এপ্রিল শুক্রবার বিকেলে রৌমারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের নটানপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। ওই দিন রাতেই নির্যাতনের শিকার শিশুর মা হাসিনা বেগম বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযােগ দায়ের করেন। শিশুটি বর্তমানে রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। নির্যাতনের শিকার শিশুটি একই ইউনিয়নের নটানপাড়া গ্রামের গার্মেন্টস শ্রমিক সাদা মিয়ার পুত্র।
শিশুটির মা হাসিনা বেগম জানান, শুক্রবার বিকেলে অন্য শিশুদের সাথে বাড়ির পাশে খেলতে যায় তার ছেলে। খেলার ফাঁকে প্রতিবেশি আবু সাঈদের আম গাছ থেকে একটি আম ছিড়ে ফেলে। এর জের ধরে আবু সাঈদ এবং আব্দুর রউফ শিশুটিকে মধ্যযুগীয় কায়দায় গাছের সাথে বেঁধে বেদম মারধর করেছে। এর আগে শিশুটির দু’পা ধরে মাঠিতে ছুড়ে ফেলে দেয়। এতে মারাত্মক জখম হয় শিশুটি। শিশুটির আত্মচিৎকার স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে তারা পালিয়ে যায়। পরে আহতাবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন স্থানীয়রা। এ ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনার জাের দাবি জানান নির্যাতিত শিশুর স্বজনরা।
অভিযােগ পাবার কথা স্বীকার করে রৌমারী থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি মোন্তাছের বিল্লাহ বলেন, এ ঘটনায় শিশুটিকে দেখতে হাসপাতালে পুলিশ পাঠানা হয়েছিল। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com