কাশ্মিরে কোয়ারেন্টাইনে থাকা মুসলিমদের সাহরি ও ইফতারের ব্যবস্থা করছে মন্দির কর্তৃপক্ষ

কাশ্মিরে কোয়ারেন্টাইনে থাকা মুসলিমদের সাহরি ও ইফতারের ব্যবস্থা করছে মন্দির কর্তৃপক্ষ

রমজানে দৈনিক ৫০০ মুসলিমের জন্য সেহরী ও ইফতারের ব্যবস্থা ভারতের জম্মু ও কাশ্মিরের বৈষ্ণোদেবী মন্দির। জম্মু ও কাশ্মীরের কাটরায় কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে থাকা এসব মুসলিমদের জন্য সেহরী ও ইফতারের ব্যবস্থা করে আসছেন তারা।মন্দিরের বোর্ড সিইও রমেশ কুমার বলেন, মন্দির চত্বরে অবস্থিত আশীর্বাদ ভবনে কোয়ারেন্টাইন সেন্টারটিতে অন্তত ৫০০ জনের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে। সেখানকার বেশিরভাগই দিনমুজুর। তিনি বলেন, “রমজানে তারা রোজা রাখায় আমরা তাদের সেহরী ও ইফতারের ব্যবস্থা করার সিদ্ধান্ত নেই। আর এ নিয়ে চেষ্টার কোন কমতিও রাখেনি মন্দির কর্তৃপক্ষ।রমেশ কুমার জানান, করোনা সংক্রমণের কারণে মন্দিরের আশীর্বাদ ভবনকে কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে পরিণত করে বৈষ্ণোদেবী মন্দির কর্তৃপক্ষ। এরপরই লকডাউনের মাঝে বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা শ্রমিকদের এখানে কোয়ারেন্টাইন করার জন্য পাঠানো হয়।তবে শুধুমাত্র আশীর্বাদ ভবনেই নয়, কাটরার অন্যান্য কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের বাসিন্দাদের জন্যও সকাল, দুপুর, রাতের খাবারের ব্যবস্থা করছেন বৈষ্ণোদেবী মন্দির কর্তৃপক্ষ। এ জন্য এখনও পর্যন্ত ৮০ লক্ষ টাকা ব্যয় করেছেন তাঁরা। এ ছাড়া কোভিড-১৯ মোকাবিলায় তাঁরা ব্যয় করেছেন দেড় কোটি টাকা।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com