করোনায় আশার আলো বুয়েটের উদ্ভাবিত ‘অক্সিজেট’

করোনায় আশার আলো বুয়েটের উদ্ভাবিত ‘অক্সিজেট’

অক্সিজেট, বুয়েটের একদল তরুণের উদ্ভাবিত ছোট্ট এই যন্ত্রটি হতে পারে হাইফ্লো নজেল ক্যানোলার বিকল্প। এতে কোনো বিদ্যুৎ লাগবে না, বানাতে খরচ পড়বে মাত্র ২ হাজার টাকার মতো। এর মাধ্যমে সিলিন্ডার কিংবা হাসপাতালের বিদ্যমান সাপ্লাই লাইন থেকেই হাইফ্লো অক্সিজেন সরবরাহ করা যাবে।
সরকারের চূড়ান্ত অনুমোদন পেলে দুই মাসে উপজেলা পর্যায়ে যন্ত্রটি পৌঁছানো সম্ভব বলে জানিয়েছেন তরুণ উদ্ভাবকরা।
মহামারির পাশাপাশি দেশে ক্রমেই বেড়ে চলেছে অক্সিজেনের চাহিদা। একই সাথে রয়েছে আইসিইউ সংকট, রয়েছে বিদ্যুতের সমস্যা। এসব সমস্যার কথা মাথায় রেখে গত দশমাস ধরে কাজ করে চলেছে বুয়েটের গবেষকরা। সি প্যাফ মডেলের এই যন্ত্রটি রোগীর দেহে অক্সিজেন সরবরাহ করতে পারবে ৬০ লিটার পর্যন্ত।
গত দশমাসের হিসেবে করোনা আক্রান্ত রোগী যাদেরকে আইসিইউতে নেবার প্রয়োজন পড়েছে তাদের ৯০ ভাগই মৃত্যুর কোলে ঢোলে পড়েছে। গবেষকদের দাবি, এই ডিভাইসটি রোগীর দেহে অক্সিজেন স্যাচুরেশন বাড়াবে প্রায় ১২ ভাগ। এটি ব্যবহারে লাগবে না কোনো বিদ্যুতের ব্যবহার।
অক্সিজেট বেশ কিছুদিন ধরেই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা রোগীদের ওপর ব্যবহার করছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসকেরা।
ঢাকা মেডিকেলের মেডিসিন ও ইনফেকশাস ডিজিজ বিশেষজ্ঞ ডা. ফরহাদ উদ্দিন হাসান চৌধুরী বলেন, আমাদের অবস্থা যদি ভারতের মত খুব খারাপ হয়ে যায়, হাসপাতালে যদি অনেক রোগীর সমাগম হয়, তাহলে আমরা এই যন্ত্রের মাধ্যমে সহজেই উপজেলা পর্যায়ে অক্সিজেন প্রদান করতে পারবো। এর মাধ্যমে আমরা অনেকের জীবন রক্ষা করতে সক্ষম হবো।
বুয়েটের সাবেক শিক্ষার্থীদের সংগঠন প্রাথমিকভাবে আর্থিক সহায়তা দেয় এমন উদ্যোগের জন্য।সফল হলে দ্রুতই সাধারণের ব্যবহারের জন্য উন্মুক্ত হবে অক্সিজেট এমন আশ্বাসও রয়েছে সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায় থেকে।
ইউএইচ/

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com