কচ্ছপকে খাওয়াতে গিয়ে পুকুরে পড়ে গেলো শিশু,পরের দিন মিলল কঙ্কাল

কচ্ছপকে খাওয়াতে গিয়ে পুকুরে পড়ে গেলো শিশু,পরের দিন মিলল কঙ্কাল

নিজস্ব প্রতিবেদক,চট্টগ্রাম:চট্টগ্রাম মহানগরীর বায়েজিদ বোস্তামীর মাজারের পুকুর থেকে এক শিশুর মাথার খুলি ও দুটি পা উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পুলিশ শিশুর লাশের খণ্ডিত হাঁড় উদ্ধার করেছে। ৮ বছর বয়সি নুরুল আলম নামে শিশুটি মাছ ও কচ্ছপকে খাবার দিতে গিয়ে সোমবার দুপুরে পড়ে যায় বলে ধারণা করছে স্থানীয়রা।
পুলিশ জানায়, নূর আলমের বাড়ি সিলেটের হবিগঞ্জে। মা-বাবার সঙ্গে মাজার সংলগ্ন এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকত সে। সোমবার কোথাও খুঁজে না পেয়ে রাতে তার মা বায়েজিদ বোস্তামী থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছিলেন। মাথার খুলি ও পা উদ্ধারের পর শিশুটির মা পরিচয় শনাক্ত করে এবং মাজারের সিসি ক্যামেরা দেখে পুলিশও প্রাথমিকভাবে বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে।
সিএমপির অতিরিক্ত উপ-কমিশনার আবু বক্কর জানান, বায়েজিদ বোস্তামির পুকুরে পাওয়া হাঁড়গোড় নিখোঁজ শিশুর কিনা এখনো পুরোপুরি নিশ্চিত হওয়া যায়নি। ঘটনাটি পুলিশ তদন্ত করছে বলে জানান তিনি।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, মঙ্গলবার বিকালে মাজার কর্তৃপক্ষের থেকে খবর পেয়ে পুলিশ মাজারের পুকুর থেকে একটি মাথার খুলি উদ্ধার করে। এরপর সন্ধ্যায় দুটি পা উদ্ধার করা হয়। পা দুইটির মধ্যে বাম পায়ের হাঁটু থেকে পায়ের গোড়ালি পর্যন্ত মাংস ছিল। আর ডান পায়ের শুধু পাতায় মাংস ছিল বলে জানিয়েছেন বায়েজিদ থানার ওসি প্রিটন সরকার।
তিনি বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে খুলিটি উদ্ধার করে। সন্ধ্যায় পুকুরের কচ্ছপ প্রজনন কেন্দ্রের লোকজন ডিম খুঁজতে গিয়ে দুই পায়ের সন্ধান পায়। পুকুরের বড়বড় কচ্ছপগুলো পা দুটো নিয়ে টানাটানি করছিল।
মাজারের খাদেমদের উদ্ধৃতি দিয়ে পুলিশ জানায়, মাজারের এ পুকুরে গজার, পাঙ্গাসসহ বেশ কিছু রাক্ষুসে মাছ ও বড় বড় কচ্ছপ রয়েছে। দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে মাজার জিয়ারতের উদ্দেশ্যে আসে লোকজন (বিশেষ করে মহিলারা) মানতের উদ্দেশে পুকুরে বিদ্যমান বড় বড় কচ্ছপ (স্থানীয়ভাবে তাদের বলা হয় গজারি মাজারী) মুড়ি, পাউরুটি ও বিস্কুট খাওয়ায়।

সুত্রঃ যমুনা টিভি

  • শেয়ার করুন

সর্বশেষ খবর

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com